২রা ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ১৯শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ
কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম পৌরসভা ছাত্রলীগের দায়িত্বে শুভ ও নয়নকুবিতে আইন বিভাগের মুট কোর্ট উদ্বোধনমুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ছড়িয়ে দিতে দেবিদ্বারে শুরু হলো ‘মুক্তিযুদ্ধ অলিম্পিয়াড’কুমিল্লার লাকসামে চোরাই মোটর সাইকেলসহ আন্তঃজেলা চোর চক্রের ৪জন আটককুমিল্লার চান্দিনায় মহাসড়কে যাত্রী অপহরণকালে ভুয়া ডিবি পুলিশ আটকগোমতী ভেরীবাঁধে বেপরোয়া ট্রাক্টরের চাঁপায় প্রাণগেল অটোচালকেরকুমিল্লায় দৈনিক যুগান্তর’র দুই যুগ পুর্তি উদযাপনগাজীপুর কেক-পেটিস খাওয়ার পর দুই বোনের মৃত্যু: দোকানি সাইফুল রিমান্ডেনৌকাডুবির ৯ ঘণ্টা পর নিখোঁজ চালকের মরদেহ উদ্ধারকুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে ক্লু-লেস অটোচালক রাসেদ হত্যার রহস্য উদঘাটন, খুনি গ্রেফতার

কুমিল্লা নগর উদ্যানে নারী উদ্যোক্তাদের মিলনমেলা

৮৩
header

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও মহান স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে কুমিল্লায় অনলাইন প্লাটফর্ম ও স্বনামধন্য নারী উদ্যেক্তা তারিন মজুমদার ও কুমিল্লা সিটি কপোরেশনের সহযোগিতা শহরের নগর উদ্যানে নারী উদ্যোক্তাদের মঙ্গলবার থেকে তিনব্যাপী পণ্য পর্দশনী ও বিক্রয় মিলনমেলা অনুষ্ঠিত হয়।

মেলায় ২১ টি স্টলে শতাধিক নারীকর্মী মেলায় অংশগ্রহণ করেন।এস,এন্ড,টি কালেকশন,আরিমা কেক হাউস,আর আর হ্যাভেন,ঘরকন্যা,গোজস গ্যালারি,মায়াবিব কালারস,খাদিজা হোম মেইউ ফুড,সাত বংকসমেটিকস,ফ্যামিলিই-সপ,রকমারিক,এস,এস,ফ্যাশন হাউজ, স্বপ্ননীড়,টি,এস,এস, রংধনু পোশাক,ওমেন্ডন ক্যাশন, নামের অনলাইন ভিত্তিক স্টলগুলো দেখা যায় মেলাজুড়ে ক্রেতাদের দৃষ্টি আর্কষন করেছে।

বুধবার পড়ন্ত বিকেলে ক্রেতাদের প্রচÐ ভিড় দেখা গেছে স্টলগুলো ঘিরে। বিশেষ করে শিশু ও নারীদের উপস্থিতি দেখা যায় চোখে পড়ার মতো । আগামী শুক্রবার পর্যন্ত এ মেলা চলবে বলে জানান, কুমিল্লায় নারী উদ্যোক্ত গ্রুপের পরিচালক তারিন মজুমদার ।তিনি বলেন আমাদের জেলা নিজস্ব পণ্য ও ঐতিহ্য তুলে ধরতে আমরা স্বাধীনতা দিবসে ভিন্ন ধরনের আয়োজন করেছি।মেলা মাধ্যমে কুমিল্লার জেলাভিত্তিক পণ্য পর্দশনী বিক্রয়দের কাছে তুলে ধরতে পারবো।

নারী উদ্যোক্তা সানজিদা আক্তার বলেন,এর মাধ্যমে আমাদের নারী উদ্যোক্তা মিলিত হতে পারি। এখানে মোট একাধিক টি স্টল রয়েছে। বেশি ভাগই আমরা দেশি পণ্য নিয়ে কাজ করি থাকি। নতুন নারীদের কর্মসংস্থান ব্যবস্থা জন্য আমাদের এই মেলা মূল উদ্দেশ্য। আমরা চেষ্টা করছি এইমেলা মাধ্যমে নারী সমাজকে এগিয়ে কর্মমুখী ও আত্মনির্ভর করতে। আমাদের এই সংগঠনের শতাধিক নারী উদ্যোক্তা রয়েছেন। বিক্রিও মোটামোটি ভালই হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, ইতোপূর্বে একদিনের আয়োজনের করেছি।মানুষের প্রচুর আগ্রহ দেখে,এবার তিন দিনের আয়োজন করেছি। আয়োজক কমিটির সদস্য, আমাদের ফাগুনী ভালোবাসার উৎসব এটি। এখানে ঘরোয়া খাবার,খাদি,বাটিক, হাতের কাজের পোশাক, শিশুদের নান্দনিক পোশাক মেয়েদের সাজ সরঞ্জাম, নকশি কাঁথা, থ্রি পিস, টু-পিস, মধু, কলোজিরা, মৃৎ শিল্পসহ শতাধিক পণ্যের সমাহার ঘটেছে। এখানে বেশি হচ্ছে ঘরোয়া খাবারের স্টল। আর খাবার পণ্য বেশি বিক্রি হচ্ছে। প্রথম দিনে প্রত্যাশায় থেকে বেশি ক্রেতা এসেছে।

After Related Post